নিজেকে খোঁজার পঞ্চবাণ

  ১. কবিতা কী কবিতা কেন কবিতা কোথা থেকে আসে কবিতা কোথায় নিয়ে যায় এসব নিয়ে আবহমান কাল ধরে মানুষ ভেবে এসেছেন। এখনও ভাবেন। এসব ভাবনার কোনও সিলেবাস নেই। এলোমেলো ভাবে খানিকটা নিজের মতো করেই ভাবতে হয়। আমিও ভাবতাম। এই যে লেখালেখি করি, তা না করলে কী হতো? কিন্তু এমন কী হলো যে লেখালেখি না করে আমি থাকতে পারি না? কীসের সেই তাগিদ? আমার কোন জিন আমাকে দিয়ে লেখায়? এসব ভাবতে ভাবতে আমি দেখি, নিজেকে নিজেই ভেঙে ফেলছি। মানে আমি, দেবব্রত। আমার মধ্যে অসংখ্য দেবব্রত। কিন্তু সেইসব খণ্ডগুলোর আলাদা কোনও…

Read More

দেবব্রত কর বিশ্বাসের কবিতাগুচ্ছ

গাছের কবিতা ১. আজকাল গাছের পাশে রাস্তা ফুটে উঠতে দেখি। রাস্তার পাশে দাঁড়িয়ে থাকা গাছেদের হা-হুতাশ কীভাবে ফুল হয়ে ঝরে পড়ে, দেখি। আমার আর কিছুই ভালো লাগে না। মনে হয়, দূরে দেশ বাড়ছে সন্ত্রাসের স্বপ্নে। সে ঘুম আমার নয়, আমি জেগে থাকি এমন এমন সব কথা আসে মাথায়, যা আমার বয়সে বেশ বেমানান, যেমন মৃত্যু। গাছের মৃত্যুর কথা মনে এলে খাতার মুখ মনে পড়ে আমি তার কেউ নই, কিছুই নই। লাইনের পর লাইন জুড়ে রাস্তা সেজে থাকি। গতজন্মের গাছের ছায়া পড়ে, আমার শরীরে।   ২. সাধু যে কোথা থেকে এসেছেন…

Read More

একটি অদ্ভুত গল্প

গত সোমবার আমার জীবনে একটা অদ্ভুত ঘটনা ঘটেছিলো। আজকেও সোমবার। এক সপ্তাহ হয়ে গেলো। কিন্তু কিছুতেই মনে করতে পারছি না ঠিক এক সপ্তাহ আগে ঠিক কী হয়েছিলো। এমন সময় আমার এক পুরনো বদভ্যাস মাথাচাড়া দিয়ে ওঠে। আমি একটার পর একটা পুরনো অপমানের কথা মনে করতে থাকি, যাতে আমার মন বেশ ক্ষতিগ্রস্ত হয়। ক্ষতিগ্রস্ত হলে কী হয়, মনকে আরাম দিতে আমার অন্য মস্তিষ্ক সচল হয়ে ওঠে। তখন স্মৃতি খুঁজে খুঁজে বের করে আনে এমন সব অদ্ভুত আলোঅন্ধকারস্মৃতি, যার ফলে আমার মন অন্য দিকে ঘুরে যায়, অন্য রাস্তায় হাঁটতে থাকে আমার ভাবনাগুলো,…

Read More